সুস্বাস্থ্য.কম

সুস্থ্য দেহ ও সতেজ মনের জন্য...

  • Increase font size
  • Default font size
  • Decrease font size

এডেনয়েড (Adenoid)

E-mail Print

এডেনয়েড একধরনের টনসিল, এর অবস্থান নাকের গভীরে একদম পেছনের দিকে গলার উপরিভাগে। এর প্রদাহ বা ইনফ্লামেশন হলে এটা বড় হয়ে যায় এবং নানাবিধ সমস্যা ও উপসর্গের আবির্ভাব ঘটে। বাচ্চাদের এডেনয়েড বড় হয়ে গেলে তাদের শ্বাসকষ্ট হয় এবং তাদের নাকের বদলে মুখ (Mouth breather) দিয়ে শ্বাস নিতে দেখা যায়। এজন্য বাচ্চারা খেতে চায়না এবং তাদের স্বাস্থ্য খারাপ থাকে। এডেনয়েড বড় হলে গলার স্বর পরিবর্তিত হতে পারে এবং বাচ্চা কানে কম শোনা শুরু করে। এ ধরনের শিশুদের কানপাকা (Otitis Media) রোগ হবারও সুযোগ থাকে। অনেকদিন ধরে এ রোগে ভূগতে থাকলে এক সময় শিশুটির মুখ দিয়ে সবসময় লালা ঝরে পরতে থাকে (Drooling)। দাঁত উচু নিচু হয়ে যাওয়া, নাক বোঁচা হয়ে যাওয়া, চেহারা বোকা বোকা হয়ে যাওয়া, রাত্রে বিছানায় প্রসাব করে দেয়া (Enuresis) এসব উপসর্গও কালক্রমে একসময় শিশুটির কষ্টের কারণ হয়ে উঠতে পারে।

নাক কান গলা বিশেষজ্ঞগণের তত্ত্বাবধানে এই রোগের চিকিৎসা করানো উচিত। রোগের প্রাথমিক পর্যায়ে চিকিৎসা করালে এন্টিবায়োটিক, নাকের ড্রপ ও হিস্টাসিন জাতীয় অসুধ সেবনে এই রোগ নিয়ন্ত্রনে থাকে। সেই সাথে শ্বাসের কিছু ব্যয়াম করা, পুষ্টিকর খাবার খাওয়া, খোলামেলা পরিবেশে থাকা ইত্যাদি বিষয় গুলোও রোগীকে সুস্থ্য রাখতে সাহায্য করে। এডেনয়েড খুব বড় হয়ে গেলে অপারেশন (Adenoidectomy) করানো ছাড়া এটা ভালো হয়না। যে সকল শিশুর এডেনয়েড বড় হবার কারনে মুখ দিয়ে শ্বাস নিতে হয় বা শ্বাস কষ্ট হয় তাদের ক্ষেত্রে অপারেশন করিয়ে নেয়াই বুদ্ধিমানের কাজ হবে।

 

সুস্বাস্থ্য সুপারিশ করুন

এই সাইটের সকল তথ্য শুধুমাত্র চিকিৎসা সংক্রান্ত জ্ঞানার্জন ও সচেতনতা বৃদ্ধির লক্ষ্যে প্রকাশিত যা কোন অবস্থাতেই চিকিৎসকের বিকল্প নয়রোগ নির্নয় ও তার চিকিৎসার জন্য সংশ্লিস্ট চিকিৎসকের পরামর্শ নেয়া বাঞ্ছনীয়